1. md.masudrana2008@gmail.com : admi2017 :
  2. info.motaharulhasan@gmail.com : motaharul :

রাজশাহী নগরীর মতিহার থানা অঞ্চল ও কাটাখালি থানা অঞ্চলে মাদকের ছড়াছড়ি: ধরা ছোয়ার বাইরে হোতারা

  • আপডেট টাইম : শনিবার, ২৬ ডিসেম্বর, ২০২০
  • ১৮৮ বার
রাজশাহী নগরীর মতিহার থানা অঞ্চল ও কাটাখালি থানা অঞ্চলে মাদকের ছড়াছড়ি: ধরা ছোয়ার বাইরে হোতারা
রাজশাহী নগরীর মতিহার থানা অঞ্চল ও কাটাখালি থানা অঞ্চলে মাদকের ছড়াছড়ি: ধরা ছোয়ার বাইরে হোতারা

রাজশাহী অফিস: রাজশাহী নগরীর মতিহার থানা অঞ্চল ও কাটাখালি থানা অঞ্চলের মধ্যে মিজানের মোড় ও টাংগনকে মাদকের হাট বলা হয়। এই সকল এলাকায় দিন রাত ২৪ ঘন্টা হেরোইন, ইয়াবা ও ফেনসিডিলসহ সকল প্রকার মাদকদ্রব্য পাওয়া যায়। যাকে বলে মাদকের স্বর্গ রাজ্য। তারপরও অজ্ঞাত কারনে প্রকৃত মাদক কারবারীরা থেকে যায় ধরা ছোয়ার বাইরে।

স্থানীয়দের অভিযোগ, মতিহার অঞ্চল ও কাটাখালি থানা অঞ্চলে বড় ধরনের মাদক কারবারীদের সাথে গাপন লেনলেন রয়েছে সংশ্লিষ্ট থানার কয়েকজন এএসআই ও এসআই এর। তারা মাদকসেবিদের ধরে মাদক মামলায় চালান দেন। কিন্ত থানার পেছেনে পাওয়ার হাউজ পাড়া এলাকার একাধিক মাদক মামলার আসামী পলি, রোহি। একাধিক মাদক মামলার আসামী ডাসমারী এলাকার মুক্তারের ছেলে পালা, নাজিমের ছেলে জামাল, মালেকের ছেলে হাবিল-কাবিল, জাকা, ডাসমারী বটতলা এলাকার জিয়া। একই থানার মিজানের মোড় চরশ্যামপুর এলাকার মাদক কারবারীদের কথিত নেতা সামাদের ছেলে মনিরুল, তার ভাই আসলাম, হামিদের ছেলে ইয়াসিন ও তার ছেলে মিলন, কাদো, নেদার মন্ডলের ছেলে রবিউল ও কামরুল এরা সব সময়ই ধরা ছোয়ার বাইরে থেকেই প্রকাশ্যে চালাচ্ছে মাদকের কারবার। এসকল মাদক কারবারীরা প্রকাশ্যে বলে পুলিশকে টাকা দিয়ে কারবার করি। আমাদের কোন সমস্যা নাই। তারপরও তারা ভাল আছে বলেও জানান স্থানীয়রা।

জানতে চাইলে আরএমপি পুলিশের মুখপাত্র মো. গোলাম রুহুল কুদ্দুস জানান, মাদকের বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স ঘোষনা রয়েছে। ককোন মাদক কারবারীকেই ছাড় দেয়া হবেনা। মাদকের সাথে জড়িত কোন পুলিশ জড়িত থাকলে তদন্ত করে তার বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা নেয়া হবে বলেও জানান তিনি।

বাংলার বিবেক ডট কম- ২৬ ডিসেম্বর ২০২০

খবরটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ ক্যাটাগরীর আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2020 BanglarBibek
Customized BY NewsTheme